MD RAFIQUL ISLAM
on March 1, 2021 14 views
করিম উল্ল্যার জুতা (করিম উল্ল্যার পুরান জুতা) Karim Ullah's shoes করিম উল্ল্যার পুরান জুতা করিম উল্ল্যার জুতা (করিম উল্ল্যার পুরান জুতা) Karim Ullah's shoes
করিম উল্ল্যা ধনী মানুষ কিন্তু কিপটে স্বভাবের। নিজের একজোড়া চামড়ার জুতা ছিড়ে ক্ষয় আর তালি দিয়েই ব্যবহার করেন দীর্ঘদিন। তালির উপরে তাল একদিন জুতা বাগানে ফেলে দিলে বৃষ্টিতে ভিজে চামড়া থেকে গন্ধ বের হয়, কুকুর কামড়ে সেই জুতা ঘরের সামনে রেখে যায়। করিম উল্ল্যা সেই জুতা পায়ে দিয়ে বাজারে যায়। নতুন জুতা কিনে পুরাতন জুতা খালে ফেলে দিয়ে আসে। প্রতিবেশী মাঝি খালে সেই জুতা দেখে চিনতে পারে এই জুতা করিম উল্ল্যা ভাইয়ের। মাঝি জুতা নৌকায় তুলে নেয়, রাতে করিমে উল্ল্যা ভাইয়ের বাড়ী গিয়ে করিম উল্ল্যা ভাই (২) বলে ডাকতে থাকে। করিম উল্ল্যা ঘুমিয়ে পড়েছিল। ঘুম থেকে উঠে করিম উল্ল্যা দরজা খুলে দেখে সোনা মিয়া মাঝি তার জুতা নিয়ে দাঁড়িয়ে। করিম উল্ল্যা জিঙ্গেস করলো এত রাতে কেন এসেছে। সোনা মিয়া মাঝি বললো ভাই আমি রুপপুর হাটে গিয়েছিলাম, ফেরার সময় খালের মধ্যে আপনার জুতা দেখলাম পড়ে আছে। আমি দেখেই চিনেছি যে এই জুতা আপনার, তাই তুলে নিলাম এই নিন আপনার জুতা। করিম উল্ল্যা মাঝিকে বললো দরজার সামনে রেখে যা। এই বলে দরজা শব্দ করে লাগিয়ে শুয়ে পড়লো। বৃষ্টি পড়ছে সকাল থেকেই, দুপুরে করিম উল্ল্যা সেই তালি দেয়া পুরাতন জুতা পরেই মসজিদে গিয়ে নামাজ শেষ করে জুতা ফেলেই খালি পায়ে বাড়ী ফিরলো, কারন বৃষ্টিতে ভিজে জুতা এতটাই ভারী হয়ে গিয়েছিল যে কাদার মধ্য দিয়ে জুতা পয়ে দিয়ে বাড়ী ফেরা সম্ভব ছিলনা। নূরুল মোল্ল্যা নামাজ শেষ করে মসজিদ থেকে বের হয়ে দেখে করিম উল্ল্যা ভাইয়ের সেই তালি দেয়া জুতা। নূরুল মোল্লা একহাতে ছাতা অন্য হাতে করিম উল্ল্যা ভাইয়ের জুতা নিয়া করিম উল্ল্যা ভাইয়ের বাড়ী উপস্থিত হলো, করিম উল্ল্যা ভাই (২) বলে ডাকতে লাগলো। করিম উল্ল্যার স্ত্রী দরজার সামনে আসতেই দেখে নূরুল মোল্লার হাতে তার স্বামীর সেই তালি দেয়া জুতা। নূরুল মোল্লা করিম উল্ল্যার স্ত্রীকে বলে ভাবী ভাই সমজিরেদ সামনে জুতা রেখে এসেছিল, এই নিন জুতা। করিম উল্ল্যার স্ত্রী জুতা নিয়ে ঘরের দারজার সামনে রেখেছিল।
কয়েক দিন ধরে আর বৃষ্টি নেই, সেই জুতা শুকিয়ে আছে। করিম উল্ল্যা এতই কিপটে স্বভাবের সে মাঝে মধ্যে জামা গায়ে না দিয়ে কাঁধে ঝুলিয়ে এখানে সেখানে যায়। লোকজনে দেখায় তার জামা আছে। কিন্তু গাঁয়ে না পরে কাঁধেই রাখে। আজ আবার সেই জুতা পায়ে দিয়ে করিম উল্ল্যা রূপপুর হাটে গেল। ফেরার সময় জুতা ছিড়ে গেলে করিম উল্ল্যা বাজারের পেছনে বাগানে ছুড়ে ফেলে দেয়। দীর্ঘদিন আগে মনু মাতবরের সহিত করিম উল্ল্যার দ্বন্দ ছিল। মনু মাতবর বাজারের পেছনে বাগানে প্র¯্রাব করছিলো। ঠিক সে সময়ে করিম উল্ল্যার জুতা মনু মাতাব্বরের পিঠে গিয়ে পড়লো।
মনু মাতাব্বর করিম উল্ল্যার উপর ক্ষেপে গেল। পরদিন মনু মাতাব্বর করিম উল্ল্যার বিরুদ্ধে কোটে মান হানির মকদ্দমা করলো। একসময়ে কোট রায় দিল যে করিম উল্ল্যার ১৫০০ টাকা জরিমানা এবং করিম উল্ল্যা তার জুতা ফেরত নিবে। করিম উল্ল্যা চিৎকার করে বললো যে হুজুর আমি জরিমানা দিব, জুতা ফেরত নিব না। কোট করিম উল্ল্যার এই জুতার সমস্ত ঘটনা শুরে বললো এই জুতা মাটির নিচে পুতে রাখতে। সমস্যা তোমার হবে না, অন্যের ও হবে না।
Be the first person to like this.